1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. zahangiralam353@gmail.com : Channel Inani :
সোমবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২১, ০৬:৪০ অপরাহ্ন
শিরোনাম
প্যানেল চেয়ারম্যান নেজামুল হক লাভ বাংলাদেশ কুতুবদিয়া উপজেলার সভাপতি নির্বাচিত কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এস এম সাদ্দাম ভাইয়ের পক্ষ থেকে শীত বস্ত্র বিতরণ মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার: রামুতে ৩০ পরিবার পেয়েছে জমি ও পাকাঘর মহেশখালীতে মুজিব শত বর্ষে ২০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের মাঝে গৃহ ও জমি প্রদান মাতারবাড়ীতে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নিহত ৩, আহত ১২ জন নাইক্ষ্যংছড়িতে বিজিবি-ইয়াবাকারবারি বন্দুকযুদ্ধে নিহত-১, বন্দুক ও ইয়াবা উদ্ধার মহেশখালীতে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে আনোয়ার নামের  এক যুবকের মৃত্যু! মহেশখালীর (ভূমি)অফিসের উপ-সহকারী কর্মকর্তা(তহসিলদার)জয়নাল দুদকের হাতে আটক! কক্সবাজার ঈদগাঁও থানার শুভ উদ্বোধন রামুর ঈদগড়ে সেচ্ছাসেবক লীগের ১ নং ওর্য়াড কমিটি গঠন

মহেশখালীতে গৃহবধূ আফরোজার খুনিদের গ্রেপ্তার পূর্বক বিচারের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত।

  • আপডেট করা হয়েছে সোমবার, ১৯ অক্টোবর, ২০২০
  • ১২২ বার পড়া হয়েছে

 

মোহাম্মদ আবুতাহের মহেশখালী

মহেশহেশখালী উপজেলার কালামারছড়া ইউনিয়নের উত্তর নলবিলা গ্রামে স্বামী ও শ্বশুর বাড়ির লোকজনের হাতে মধ্যযোগিয় কায়দায় নির্মম ভাবে খুনের শিকার হওয়া গৃহবধু আফরোজা খানম।

খুনিদের গ্রেপ্তার পূর্বক দ্রুত শাস্তির দাবীতে আজ ১৯ অক্টোবর সোমবার বিকালে মহেশখালী উপজেলা পরিষদের সামনে মহেশখালী নারী উন্নয়ন ফোরামের অায়োজনে মানবন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মহেশখালী উপজেলা নারী উন্নয়ন ফোরাম ও হোয়ানক ইউনিয়ন এলাকাবাসীর যৌথ উদ্যোগে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে প্রায় শতাধিক নারী ব্যানার-ফেস্টুন হাতে উপস্থিত হয়।

সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মী আবুল বশর পারভেজ এর সঞ্চালনায় উক্ত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন-নারী উন্নয়ন ফোরামের সভাপতি মহেশখালী উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মিনুয়ারা ছৈয়দ, সাধারণ সম্পাদক মিনুয়ারা মিনু,অর্থ সম্পাদক মিনুয়ারা অাকতার, নিহত আফরোজার মা মনোয়ারা বেগম,বোন শারমিন আকতার ও রুমি আকতার, ভাই মিজান ও এমরান, আওয়ামীলীগ নেতা মহেশখালী শিল্পকলা একাডেমীর যুগ্ন সম্পাদক আবদুচ্ছালাম বাঙ্গালী,মহেশখালী প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এম ছালামত উল্লাহ।মহেশখালী উন্নয়ন পরিষদের সভাপতি মোঃ ইউনুছ, যুবলীগ নেতা মহি উদ্দীন।

উক্ত মানববন্ধনে বক্তারা বলেন,অপরাধীর কোন ধর্ম ও দল নেই। তাদের একমাত্র পরিচয় তারা অপরাধী।

আফরোজাকে নৃসংশভাবে হত্যায় জড়িত শ্বশুরবাড়ির লোকদের দ্রুত সময় গ্রেপ্তারের দাবী জানান।

নির্যাতন করে হত্যার পর লাশ গুম করার মত জঘন্য ঘটনা ধামাচাপা দিতে যারা সিন্ডিকেট করে কাজ করেছে তাদের চিহ্নিত করতে হবে।

আফরোজাকে গুম করে পরকিয়া করে পালিয়েছে বলে প্রচার করে উল্টো আফরোজার পরিবারকে ফাঁসানোর নীল নকশা অংকন করেছিল খুনিরা।

কিন্তু আফরোজার পরিবারের চাপের কারণে তা সম্ভব হয়নি।

খুনিদের কাউকে বাদ দিলে বা গ্রেপ্তারে কালক্ষেপন করলে কঠোর কর্মসূচি হাতে নেয়া হবে বলে তাঁরা জানান।

কত জগন্যতম নরপশু হলে অাইয়ামে জাহেলিয়ার মত জীবন্ত পুতে পেলে মাঠিতে নিজের স্ত্রীকে।

নিহত পরিবারের দাবী অাফরোজাকে বেদম প্রহার ও কুপিয়ে জখম করে অজ্ঞান অবস্থায় মাঠিতে জীবন্ত গর্তে মাঠি ছাপা দিয়ে মৃত্যু নিশ্চিত করে।

কেহ গর্ত কুড়ে,কেহ টাইস সংগ্রহ করে,কেহ মাঠি ছাপা দেয়,কেহ বাপ্পীকে ঢাকা চলে যেতে পরকিয়ার নাঠক সাজায়।

হাসান বশিরের পরিবারের ৩জন ঘনিষ্ট অাত্বীয় অাফরোজার লাশের ঘটনা ধামা ছাপা দিতে প্রশাসনের লোকের সামনে মিডিয়া ব্যক্তিত্ব দাবী করে নানান মিথ্যা তথ্য দিয়ে লাশ সনাক্তে ও অাসামীরা পালিয়ে যেতে সহায়তা করে।

তাদেরকে ও অাইনের অাওতায় অানার দাবী জানান।

এদিকে নিহত আফরোজার মা,ভাই ও বোনরা বলেন, বিয়ের নয় মাসের মাথায় তার স্বামী বাপ্পী,শ্বশুর হাসান বশির,শ্বাশুড়ি রোকেয়া হাসানম ভাসুর হাসান আরিফ ও হাসান রাসেল সহ সবাই মিলে পরিকল্পিত ভাবে আফরোজাকে হত্যা করে লাশ গুম করেছে।

পরে বিভিন্ন মাধ্যমে খুনিরা লাশখুঁজে না পেতে যাবতীয় পরিকল্পনাও করে। নিখোঁজের দিন থেকে লাশ পাওয়ার এই ৬ দিনের মধ্যে ঘাতক শ্বাশুর বাড়ির লোকজন আফরোজার পরিবারের সদস্যদের বিভিন্ন মাধ্যমে হুমকি প্রদান করেছে।

তারা এই হত্যাকান্ডের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি এবং সর্বস্তরের মানুষের সহযোগীতা কামনা করেছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

Designed by: Nagorik It.Com